ভারতের সঙ্গে রক্তের সম্পক: পররাষ্ট্রমন্ত্রী - আরশি কথা

আরশিকথা ঝলক

Home Top Ad

Responsive Ads Here

Post Top Ad

Responsive Ads Here

শনিবার, ৮ আগস্ট, ২০২০

ভারতের সঙ্গে রক্তের সম্পক: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

আবু আলী, ঢাকা,আরশিকথা ॥ চীনের দেওয়া পণ্যের শুল্কমুক্ত সুবিধা নিয়ে ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্কে কোনো বিতর্ক তৈরি হয়নি জানিয়ে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন বলেছেন, ভারতের সঙ্গে আমাদের রক্তের সম্পর্ক আর চীনের সঙ্গে অর্থনৈতিক। ৮ আগস্ট শনিবার মেহেরপুরে ঐতিহাসিক মুজিবনগর স্মৃতিসৌধ কমপ্লেক্স এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। এক প্রশ্নের জবাবে মোমেন বলেন, করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কারে ভারত এবং পাকিস্তান দুটি দেশই অন্য দেশের সঙ্গে যৌথভাবে গবেষণামূলক কাজ শুরু করেছে। সেখানে আমরা কারও সঙ্গে কাজ শুরু করতে পারলাম না এটা দুঃখজনক। আমরা ভ্যাকসিন পেতে টাকা দিয়ে রেখেছি। তিনি বলেন, চীন বাংলাদেশকে ভ্যাকসিন দেবে। চীন ৮ হাজারের বেশি পণ্যে শুল্কমুক্ত সুবিধা বাংলাদেশকে দিয়েছে। এটা নিয়ে ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের সম্পর্কে কোনো বিতর্ক তৈরি হয়নি। এটাকে নিয়ে কেউ কেউ রাজনীতি করার চেষ্টা করছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ভারতের সঙ্গে সমুদ্র, সীমান্ত, নিরাপত্তাসহ আমাদের বড় ধরনের সব সমস্যা দূর হয়েছে। ছোট কিছু সমস্যা ঝুলে আছে। ঠিক হয়ে যাবে। মনে রাখবেন ভারতের সঙ্গে আমাদের রক্তের সম্পর্ক। আর চীনের সঙ্গে আমাদের অর্থনৈতিক সম্পর্ক। মোমেন বলেন, ‘ভারত-চীনের গণ্ডগোল এটা নিয়ে আমরা উদ্বিগ্ন নই। আগামী বছর আমরা ভারতকে নিয়ে স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তি উৎসব করবো। কেননা আমাদের বিজয় মানে ভারতের বিজয়। আবার ভারতের বিজয় মানে আমাদের বিজয়। আরেক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর পাঁচ খুনির এখনো যারা জীবিত আছে, তাদের মধ্যে দুজনের সন্ধান মিলেছে। একজন আমেরিকা এবং একজন কানাডা আছে। মুজিববর্ষে এই দুই খুনির একজনকে এ বছরই দেশে আনার জোর প্রক্রিয়া চলছে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা যাদের আনতে পারছি না সেক্ষেত্রে দূতাবাসগুলোকে বলেছি- অন্তত মাসে একবার লোকজন নিয়ে ওই সব খুনির বাসার সামনে গিয়ে অবস্থান করতে, যেন তারা জনগণের কাছে ধিকৃত হয়। এর আগে শুক্রবার রাত ৯টায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেহেরপুর সার্কিট হাউস পৌঁছালে মেহেরপুর জেলা প্রশাসক ড. মোহাম্মদ মনসুর আলম খান তাকে ফুল দিয়ে বরণ করেন। শনিবার সকালে তিনি মুজিবনগর স্মৃতিসৌধে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানান এবং কমপ্লেক্স এলাকা ঘুরে দেখেন।

৮ই আগস্ট ২০২০

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Post Bottom Ad

Responsive Ads Here