বাংলাদেশকে ২০টি রেলইঞ্জিন দিচ্ছে ভারত ॥ অক্টোবরে হাসিনার সফরে হস্তান্তর করা হতে পারে - আরশি কথা

আরশিকথা ঝলক

Home Top Ad

test banner

Post Top Ad

test banner

মঙ্গলবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

বাংলাদেশকে ২০টি রেলইঞ্জিন দিচ্ছে ভারত ॥ অক্টোবরে হাসিনার সফরে হস্তান্তর করা হতে পারে

আবু আলী, ঢাকা ॥
বন্ধুত্বের নিদর্শন হিসেবে ভারতীয় রেল বিভাগ বাংলাদেশকে ২০টি লোকোমোটিভ (রেলইঞ্জিন) সরবরাহ করবে। বিনা ভাড়ায় ১০ টি বিজি (ব্রড গেজ) লোকোমোটিভ এবং ১০টি এমজি (মিটার গেজ) লোকোমোটিভ বাংলাদেশকে সরবরাহ করবে ভারত। অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভারত সফরের সময় এই ইঞ্জিনগুলোর হস্তান্তর হতে পারে। 
ভারত সফর শেষে দেশে ফিরে ১৭ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার রেল ভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে রেলপথমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন এসব কথা বলেন । এ সময় রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোফাজ্জেল হোসেন, মহাপরিচালক মো. শামসুজ্জামান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।
রেলমন্ত্রী আরও বলেন, ‘ভারত বাংলাদেশের সাথে বন্ধুত্বের নিদর্শন হিসাবে বিনা ভাড়ায় ১০ টি বিজি (ব্রড গেজ) লোকোমোটিভ এবং ১০টি এমজি (মিটার গেজ) লোকোমোটিভ বাংলাদেশকে সরবরাহ করবে।’  রেলমন্ত্রী বলেন, ভারত তথ্য প্রযুক্তি কাজে লাগিয়ে রেল খাতে অনেক এগিয়ে গেছে। ভারতের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে আমাদের দেশের রেল ব্যবস্থাপনায় পরিবর্তন আনাই আমাদের এ সফরের মূল লক্ষ্য।’
ভারত সফরে উভয় দেশের মধ্যে সিদ্ধান্তে বিষয়ে নুরুল ইসলাম সুজন বলেন, মৈত্রী এক্সপ্রেস ট্রেনের রানিং টাইম কমিয়ে সপ্তাহে ৪ দিনের পরিবর্তে ৬দিন হবে। বন্ধন এক্সপ্রেস ১দিনের পরিবর্তে ২দিন চালানোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।
এছাড়া বাংলাদেশ রেলওয়ের ওয়ার্কসপ সমূহের (সৈয়দপুর ও পাহাড়তলী কারখানা) আধুনিকীকরণ, বাংলাদেশ রেলওয়েতে কর্মরত কর্মকর্তা-কর্মচারিদেরকে ভারতীয় রেলওয়েতে প্রশিক্ষণ প্রদানের ব্যবস্থা সহ বঙ্গবন্ধু সেতুর পশ্চিমে অস্থায়ী কনটেইনার হ্যান্ডেলিং ইয়ার্ড স্থাপনের বিষয়ে ভারত আগ্রহ প্রকাশ করেছে বলে জানান মন্ত্রী। যমুনা নদীর উপর বঙ্গবন্ধু রেলসেতুর কাজ আগামী জানুয়ারী মাসে শুরু হবে জানিয়ে তিনি বলেন, ছাদে ভ্রমণ পুরোপুরি বন্ধ করা হবে। পদ্মা সেতু চালুর দিন থেকে সেতু হয়ে ভাঙ্গা পর্যন্ত ট্রেন চলবে।

১৭ই সেপ্টেম্বর ২০১৯

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Post Bottom Ad

test banner