বাংলাদেশ থেকে বিদেশগামীদের নিতে হবে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট - আরশি কথা

আরশিকথা ঝলক

Home Top Ad

test banner

Post Top Ad

test banner

রবিবার, ১২ জুলাই, ২০২০

বাংলাদেশ থেকে বিদেশগামীদের নিতে হবে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট

আবু আলী, ঢাকা ।। বিদেশ গমনকারী সকল বাংলাদেশিকে এখন থেকে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে গমন করতে হবে। সরকার অনুমোদিত করোনা টেস্টিং সেন্টার থেকে করোনা পরীক্ষা করে এ সার্টিফিকেট সংগ্রহ করা যাবে। রবিবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ. কে. আব্দুল মোমেনের সভাপতিত্বে এক বিশেষ ভার্চুয়াল আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় এসব সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। ইমিগ্রেশন কর্তৃপক্ষের যাচাইয়ের সুবিধার্থে করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইটে দেওয়ার বিষয়ে এ সভায় সুপারিশ করা হয়। তাছাড়া কর্মসংস্থানের জন্য বিদেশে গমনকারীদের করোনা পরীক্ষার সুবিধার জন্য প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অধীনে একটি নিবেদিত করোনা টেস্টিং সেন্টার স্থাপনেরও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। আন্তঃমন্ত্রণালয় সভায় স্বাস্থ্যমন্ত্রী ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী জাহিদ মালেক, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমেদ এবং পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম অংশগ্রহণ করেন। এছাড়া পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন, বেসরকারি বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. মুহিবুল হক, প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন সভায় সংযুক্ত ছিলেন। পররাষ্ট্র মন্ত্রী জানান, "কোনো কোনো দেশ এরকম নির্দেশনা দিয়েছে যে, তাদের দেশে প্রবেশ করতে করোনাভাইরাস নেগেটিভ সার্টিফিকেট লাগবে। সেই বিবেচনায় এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমরা।" তবে সম্প্রতি ইতালি থেকে বাংলাদেশিদের ফেরত পাঠানোর ঘটনার সাথে এই সিদ্ধান্তের কোনো সম্পর্ক নেই বলে জানান মি. মোমেন। তিনি বলেন, "ইতালিতে যাওয়া যাত্রীদের কোনো করোনভাইরাস পরীক্ষার ফলাফল জানতে চাওয়া হয়নি। বাংলাদেশ থেকে ফ্লাইট যাওয়ায় নিষেধাজ্ঞা থাকার মধ্যেও যাওয়ার ফলে তাদের ফেরত পাঠানো হয়েছে। তাদের ফেরত পাঠানোর সাথে করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলের কোনো সম্পর্ক নেই।" বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয় শুধুমাত্র সরকার অনুমোদিত টেস্টিং সেন্টার থেকেই করোনাভাইরাস পরীক্ষার সার্টিফিকেট গ্রহণযোগ্য হবে। কর্মসংস্থানের জন্য বিদেশে গমনকারীদের করোনা পরীক্ষার সুবিধার জন্য প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অধীনে একটি নিবেদিত করোনা টেস্টিং সেন্টার স্থাপনেরও সিদ্ধান্ত নেয়া হয় ঐ বৈঠকে। করোনাভাইরাস নেগেটিভ সার্টিফিকেট থাকার পরও ঢাকা থেকে পৌঁছানোর পর পজিটিভ হওয়ার পর জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া ও চীন ঢাকার সাথে বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়।

১২ই জুলাই ২০২০

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Post Bottom Ad

test banner